কবি শহীদ কাদরী ৭৭ তম জন্মদিন আজ
$post->title

আজ ১৪ই আগষ্ট। কবি শহীদ কাদরীর ৭৭তম জন্মদিন। কলকাতা শহরের পার্ক সার্কাসে ১৯৪২ সালের এই দিনে জন্মগ্রহণ করেন কবি শহীদ কাদরী।

শহীদ কাদরী ছিলেন, ১৯৪৭-পরবর্তীতে বাঙালি কবিদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য কবি। যিনি নাগরিক জীবন সম্পর্কিত বিষয়াবলি নিয়ে বাংলা কবিতায় আধুনিকতাবোধের সূচনা করেছিলেন। নাগরিক জীবনের প্রাত্যাহিক অভিব্যক্তির অভিজ্ঞতাকে কবিতায় রূপ দিয়েছেন। দেশপ্রেম, অসাম্প্রদায়িকতা, বিশ্ববোধ, প্রকৃতি ও নগর জীবনের অভিব্যক্তি তার কাব্যের মূল বৈশিষ্ট্য ছিল। 

১৯৫৩ সালে মাত্র এগারো বছর বয়সে তিনি ‘পরিক্রমা’ শিরোনােম তার প্রথম কবিতা রচনা করেন যা মহিউদ্দিন আহমদ সম্পাদিত ‘স্পন্দন’ কাগজে ছাপা হয়েছিল। এরপর ‘জলকন্যার জন্য' শিরোনামে কবিতা লেখেন, এবং একই কাগজে ছাপতে দেন। এভাবে নিয়মিত অনিয়মিতভাবে তার কবিতা লেখা চলতে থাকে। পঁচিশ বছর বয়সে ১৯৬৭ সালে ছাপা হয় তার প্রথম কাব্যগ্রন্থ 'উত্তরাধিকার'। এরপর ১৯৭৪ সালে 'তোমাকে অভিবাদন প্রিয়তমা', 'কোথাও কোনো ক্রন্দন নেই' এবং প্রবাসে থাকার সময়ে রচিত কবিতা নিয়ে ২০০৯ সালে কাব্যগ্রন্থ 'আমার চুম্বনগুলো পৌঁছে দাও' প্রকাশিত হয়।

শহীদ কাদরীর প্রকাশিত গ্রন্থ সংখ্যা চারটি এবং এইসব গ্রন্থে সন্নিবেশিত কবিতার সংখ্যা ১২২টি। পরবর্তীতে তিনি আরও চারটি কবিতা লেখেন। সব মিলিয়ে তার কবিতা সংখ্যা ১২৬টি।

১৯৭৩ সালে বাংলা কবিতায় অবদানের জন্য তিনি বাংলা একাডেমি পুরস্কার অর্জন করেন। ২০১১ সালে একুশে পদক লাভ করেন বিশ্ব বরেণ্য এই কবি।

কোলকাতা শহরে শৈশব কাটে কবির। পরে ১৯৫২ সালে ১০ বছর বয়সে তিনি পূর্ব পাকিস্তানের (বর্তমান ঢাকায়) রাজধানী ঢাকায় চলে আসেন। এরপর প্রায় তিন দশক তিনি ঢাকায় ছিলেন। ১০৭৮ সাল থেকে তার প্রবাস জীবন শুরু হয়। বালিন, লন্ডন, বোস্টনে জীবনের অনেকটা সময় কেটেছে তার। জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত কবি ছিলেন, নিউ ইয়র্কে।  


সাবস্ক্রাইব করুন! মেইল দ্বারা নিউজ আপডেট পান