কবি , গল্পকার ও সম্পাদক মেঘ অদিতি'র জন্মদিন আজ
$post->title

কবি : মেঘ অদিতি

এ সময়ের বরেণ্য কবি ও গল্পকার মেঘ অদিতি'র আজ  জন্মদিন । আজকের এই দিনে জামালপুর জেলা শহরে জন্মগ্রহন করেন তিনি ।

বর্তমানে তিনি ঢাকায় বসবাস করছেন । তিনি পেশায় একজন  গ্রাফিক ডিজাইনার  । তাছাড়া  ছোটকাগজ ঐহিক এর একজন সম্পাদক হিসেবে ঐহিক অনলাইন এবং ঐহিক বাংলাদেশের দায়িত্বে আছেন।

তার প্রকাশিত গ্রন্থসংখ্যা ছয়টি । কবিতাগ্রন্থ চারটি ও গল্পগ্রন্থ দুইটি ।

কবি জন্মদিনে সাহিত্যবার্তা পরিবারের পক্ষ থেকে একরাশ ফুলেল শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন ।

"ও অদৃশ্যতা হে অনিশ্চিতি" কাব্যগ্রন্থ থেকে কিছু কবিতা:

সময়

ভ্রমণ অলীক নয়
দেখো তার উড্ডীন ডানায়
পত্ররাশি উড়ে যায়
আজ কোন্ অগ্নির কাছে
কেন্দ্রের বিস্ফার দেখে কারা যেন
রাতের পেখম খুলে
রক্তবর্ণে আঁকে বর্ণমালা ভোর
প্রতিরোধ
ভেঙে ফেলে ওরা কারা?
আদিগন্ত এমনই টানের হাওয়া, মনে পড়ে-
একদিন চক্রাকারে, ঘিরেছিল কোমলআগুন

শূন্যতা অসীম

যে ভুল দ্বিধাহীন স্পর্শ রেখে গেছে ঘুমে
ঘুমের পাশাপাশি মৃত্যু শুয়ে আছে কালো
বিরহ সঙ্গীত কখন সে ও গেছে থেমে
নিভৃতে মনোভার, দু'চোখ ভরা তবু আলো
শরীরে অবিরাম শীতল চুম্বন হেনে
আহতসংকেতে রেখেছে কারা যেন হাসি
প্রিয় সে ফিরে গেছে অসীম শূন্যতা এনে
অদূরে বেজে যায় তীক্ষ্ণ হাহাকার বাঁশি

সমুদ্রপথ

স্থানিক দূরত্ব পেরিয়ে গেলে শাব্দিক পতনের কাল-সেখানে যেটুকু
আলো তার সেটুকুই অন্ধকার। তুমি সে আলো-আঁধারে মায়া মেখে
বলো 'এসো' অমনি ঘুমিয়ে থাকা কাঠবেড়ালিকে মনে পড়ে যায়।
বাতাসের তীর ওর রোমশ পিঠে ঢুকে পড়ছে। রোম রোম ঘুম
মুঠোর নীলে পিঠ হয়েছে সফেন সমুদ্রপথ। নৈর্ব্যক্তিক মূক
জ্যোৎস্নায় আমাদের দেখে ফেলেছিল, তৃতীয় চোখ!
শিশির উড়ে পড়েছিল বাদামি ছায়াটুকু শুধু!
টপকে যাওয়া ভূগোল আঙ্গিনা ধরে আজ বারবার মুখে
এসে পড়ছে গ্রীষ্মের তীব্র থাবা।
ইমেজগুলো আসছে, ভাঙ্গছে, ছড়াচ্ছে কিন্তু মিলিয়ে যাচ্ছে না…


আলোচাঁদ

তোকে বলিনি, মলাট খুলে নিলে
সেখানে কখনও আর কবিতা থাকে না

সন্ধ্যায় ফুলার রোড, আলোচাঁদ মেখে
কবিতা ভ্রমরে হয় স্পর্ধিত আকাশ
আমিও তুলে দিই ঝাঁপ
মিল অমিলের তুমুল সুরে পাড় অনিবার্য ভাঙে
ঢেউ ছড়ানো হাসিতে থাকে ক্লান্ত অনুতাপ
মেলে ধরছি বাস্তুঘুম, গৃহহীন উপচার
আয় দুজনে মিলে আজ ভ্রমণ তর্জমা করি




সাবস্ক্রাইব করুন! মেইল দ্বারা নিউজ আপডেট পান